সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ০২:৪৫ অপরাহ্ন

Notice :
প্রকাশ্যে ধূমপান করে তোপের মুখেপড়া এক তরুণীর ভিডিও ভাইরাল।চরমোনাই পীরের ওয়াজ মাহফিল বাতিল।বিএনপির কোনো নেতাকর্মী যেন পদ্মা সেতু পার না হয় বললেন শাজাহান খান।জাতীয় পরিচয়পত্রের তথ্য অনুযায়ী, ভাতাপ্রাপ্ত প্রায় দুই হাজার বীর মুক্তিযোদ্ধার বয়স ৫০–এর নিচে।করোনা আক্রান্ত কনের অভিনব পদ্ধতিতে বিয়ে (ভিডিও)আবাসিক হোটেলে জনপ্রিয় অভিনেত্রীর ঝুলন্ত মরদেহ।পুলিশে হঠাৎ বড় রদবদল।ইউটিউবে যাত্রা শুরু করছেন মিজানুর রহমান আজহারী।
সর্বশেষ সংবাদ :
ডিমলায় যথাযোগ্য মর্যাদায় ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উদযাপন। আজকের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ। আজকের ক্রাইম-নিউজ সংগ্রাম আইন শৃক্সখলা রক্ষায় পুলিশ বাহিনীর অবদান অন্ধীকার। আজকের ক্রাইম-নিউজ সরকারি হাসপাতালের ওষুধ পাচারের ছবি তোলায় সাংবাদিক অবরুদ্ধ। আজকের ক্রাইম-নিউজ কাভার্ড ভ্যানচাপায় এসআইয়ের মর্মান্তিক মৃত্যু। আজকের ক্রাইম-নিউজ বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ পৃথিবীর কালজয়ী ভাষণগুলোর অন্যতম। আজকের ক্রাইম-নিউজ স্বামীর ঘর লুট করে কিশোরের সঙ্গে পালালেন ২ সন্তানের জননী। আজকের ক্রাইম-নিউজ তাহেরীর গান নাজায়েজ : জাতির কাছে ক্ষমা প্রার্থনার আহ্বান। আজকের ক্রাইম-নিউজ আসামি কারাগারে নাকি পালিয়েছেন, জানে না কারা কর্তৃপক্ষ! আজকের ক্রাইম-নিউজ বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে সর্ববৃহৎ লোগোর মানবপ্রদর্শনী আয়োজন। আজকের ক্রাইম-নিউজ
মানবাধিকার চেয়ারম্যান পরিচয় দিয়ে ধরা দুই টাউট আইনজীবী। আজকের ক্রাইম-নিউজ

মানবাধিকার চেয়ারম্যান পরিচয় দিয়ে ধরা দুই টাউট আইনজীবী। আজকের ক্রাইম-নিউজ

অনলাইন ডেস্ক

শহীদুল ইসলাম ও এ কে এম গিয়াসউদ্দিন কাউছার নিজেদের মানবাধিকার চেয়ারম্যান পরিচয় দিয়ে মামলা সংগ্রহ করতেন। আইনজীবী না হয়েও তারা নিজেদের আইনজীবী পরিচয় দিতেন। এভাবে নিরীহ বিচারপ্রার্থীর কাছ থেকে হাতিয়ে নিতেন হাজার হাজার টাকা। অবশেষে তাদের শেষ রক্ষা আর হলো না। ঢাকা আইনজীবী সমিতি কার্যনিবার্হী কমিটির হাতে ধরা পড়েছেন তারা। তাদের বিরুদ্ধে রাজধানীর কোতোয়ালী থানায় একটি মামলা করেছেন ঢাকা আইনজীবী সমিতির দফতর সম্পাদক এইচ এম মাসুম।

রোববার (১২ জুলাই) মামলার বাদী ও ঢাকা আইনজীবী সমিতির দফতর সম্পাদক এইচ এম মাসুম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, শহীদুল ইসলাম ও এ কে এম গিয়াসউদ্দিন কাউছার তারা আইনজীবী না হয়েও আইনজীবী পরিচয় দিতেন। তারা নিজেদের মানবাধিকার চেয়ারম্যান পরিচয় দিতেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আজ আদালত পাড়া থেকে তাদের আটক করি। এরপর কোতোয়ালী থানায় তাদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করি।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, আসামি শহীদুল ইসলাম (৪৭) নিজেকে আইনজীবী হিসেবে পরিচয় দিতেন। পরবর্তীতে ঢাকা আইনজীবী সমিতির রেকর্ড পর্যালোচনা করে দেখি সে আইনজীবী নয়। পরবর্তীতে জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, আসামি শহীদুল ইসলাম অবৈধ ও অসৎ উদ্দেশে মানবাধিকার চেয়ারম্যান পরিচয় দিয়ে ভিজিটিং কার্ড ও পোস্টার ছাপিয়ে ‘বিশ্ব আদালত মানবাধিকার আইন বাস্তবায়ন সংস্থা’ নামে একটি প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করেন। অবৈধ প্রতিষ্ঠানের পোস্টার সে দেওয়ানি,ফৌজদারি ,জমি রেজিস্ট্রেশনসহ সংস্থার মাধ্যমে ১-১২ মাসের মধ্যে সব ধরনের মামলা নিষ্পত্তি করা হয় মর্মে পোস্টার ছাপিয়ে এবং নিজে ওকালাতনামা ছাপিয়ে তা ব্যবহার করে প্রত্যক্ষভাবে মামলা সংগ্রহ করে বিচারপ্রার্থী জনগণের সঙ্গে প্রতারণার মাধ্যমে বিপুল পরিমান অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিলেন।

এ কে এম গিয়াসউদ্দিন কাউছারও (৩১) নিজেকে আইনজীবী পরিচয় দেন। ঢাকা আইনজীবী সমিতির রেকর্ড পত্র পর্যালোচনা করে দেখি সে আইনজীবী নয়। উক্ত আসামি সে নিজেকে মানবাধিকার চেয়ারম্যান ও আইনজীবী পরিচয় দিয়ে প্রত্যক্ষভাবে মামলা সংগ্রহ করে বিচারপ্রার্থী জনগণের নিকট থেকে বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিলেন।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019
Bengali English