শুক্রবার, ২৫ Jun ২০২১, ০৩:৫২ অপরাহ্ন

Notice :
চাকরির পেছনে না ছুটে উদ্যোক্তা হওয়ার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর
স্ত্রীর পরকীয়ায় স্বামী, পারিবারিক কলহে যুবকের আত্মহত্যা।

স্ত্রীর পরকীয়ায় স্বামী, পারিবারিক কলহে যুবকের আত্মহত্যা।

আজকের ক্রাইম ডেক্স
সিরাজগঞ্জে স্ত্রীর পরকীয়ায় স্বামী ও পারিবারিক কলহে যুবক আত্মহত্যা করেছেন। বুধবার (২৬ মে) সকালে সদর উপজেলার ফরিদপুর গ্রাম ও শেরপুর উপজেলার প্যান্টাগন হোটেল এলাকা থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

তারা হলেন- চন্দন কুমার বাশফর (৩২) ও ফরিদুল ইসলাম (২৬)। চন্দন কুমার বাশফর শেরপুর উপজেলার চান্দাইকোনা ইউনিয়নের হাওলাদারপাড়া এলাকার সুখিল কুমারের ছেলে ও ফরিদুল ইসলাম সদর উপজেলার নলকা ইউনিয়নের ফরিদপুর গ্রামের রবিউল ইসলামের ছেলে।

চান্দাইকোনা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, প্যান্টাগন হোটেলে পরিচ্ছন্নকর্মীর চাকরি করতেন চন্দন কুমারের স্ত্রী পূর্ণিমা রাণী। চাকরিকালীন সময়ে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়েন পূর্ণিমা। এ ঘটনায় স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রায়ই ঝগড়া লেগে থাকতো। এসব কারণে গত সপ্তাহে সামাজিকভাবে পূর্ণিমা সঙ্গে চন্দনের বিবাহবিচ্ছেদ হয়। এতে রাগে-ক্ষোভে হোটেলের সামনে গ্যাসের ট্যাবলেট পান করে চন্দন কুমার বাশফর। স্থানীয়রা বগুড়া শহীদ জিয়াউর রমান মেডিকেল কলেজে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন যাবত পারিবারিক অশান্তিতে ভুগছিলেন ফরিদুল ইসলাম। মঙ্গলবার রাতে ফের স্ত্রীর সঙ্গে ঝগড়া হয়। এতে রাগে-ক্ষোভে ফরিদুল ইসলাম গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। তাৎক্ষণিকভাবে পরিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে রায়গঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

রায়গঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শহিদুল ইসলাম বলেন, নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019
Bengali English