রবিবার, ১৩ Jun ২০২১, ০১:৪১ পূর্বাহ্ন

Notice :
চাকরির পেছনে না ছুটে উদ্যোক্তা হওয়ার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর
সর্বশেষ সংবাদ :
নকল গয়না নিয়ে মারামারি, কনেকে তালাক, জরিমানা দিয়ে রক্ষা বরপক্ষের। পুলিশ সুপারের নির্দেশে দুগ্ধপোষ্য মুমূর্ষ শিশুকে উদ্ধার করলো ডিবি পুলিশ। সিলেট এবছর শাহ্ জালাল (রহ.) মাজারে ওরস হচ্ছে না। বানারীপাড়ায় ইয়াবা সহ ঝালকাঠির মাদক কারবারি বিশ্বজিৎ আটক। শাস্তি মেনে নিয়েছেন সাকিব, হচ্ছে না শুনানি। কাজ বাগিয়ে নিতে গণপূর্ত অফিসে আ’লীগ নেতার অস্ত্রের মহড়া। ব্যবসার নামে প্রতারণার প্রতিবাদে তালতলী উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন। পাবজি খেলাকে কেন্দ্র করে বিরোধ, ফরিদপুরে অবরুদ্ধ একটি পরিবার। করোনার চেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচন : সিইসি। ভোলায় তথ্য গোপন করে একাধিক বিয়ে করে ২ নারী গ্রেপ্তার।
চুরি করা গরু কেটে ভাগাভাগি, ইউপি সদস্য গ্রেফতার।

চুরি করা গরু কেটে ভাগাভাগি, ইউপি সদস্য গ্রেফতার।

আজকের ক্রাইম ডেক্স
রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ঘাট থেকে ছুটে যাওয়া একটি গরু ধরে নিয়ে জবাই করে মাংস ভাগাভাগি করে নিয়েছেন ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য। এ ঘটনায় গরু চুরির মামলা দায়েরের পর দৌলতদিয়া ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আ. গফুর খানকে (গাফ্ফার) পুলিশ গ্রেফতার করে বুধবার (১৯ মে ) দুপুরে আদালতে সোপর্দ করেছে।

জানা যায়, কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার বাগুলহাট ইউনিয়নের গরু ব্যবসায়ী আইয়ুব আলী ১২ মে রাত ১০টার দিকে দৌলতদিয়ার ৪ ও ৫ নং ফেরি ঘাট এলাকায় নদী পাড়ের জন্য তিন চাকার ট্রাক যোগে ২০টি গরু নিয়ে আসেন। রাত ২টার দিকে তার গরু গুলি ট্রলারে তোলার সময় তিনি দেখতে পান একটি গরু নেই। একটি গরু তাদের অগোচরে ছুটে যায়। ছুটে যাওয়া কালো রংয়ের ক্রস ষাড় গরুটির মূল্য আনুমানিক ১ লাখ ২০ হাজার টাকা। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও গরুটি পাওয়া যায়নি। এক পর্যায়ে ভোর রাতে তারা দৌলতদিয়ার ৭নং ওয়ার্ডের আংকের শেখের গ্রামে যান। সেখানে গিয়ে তারা দেখতে পান গাফফার মেম্বারের নেতৃত্বে হারিয়ে যাওয়া গরুটি জবাই করে মাংস কাটা হচ্ছে। সেখানে তারা উপস্থিত হলে মাংস কাটতে থাকা লোকজন তড়িঘড়ি করে বাড়ির ভেতরে সমস্ত মাংস ও গরুর চামড়া সরিয়ে ফেলেন। তবে তাদের কাছে জানতে চাইলে তারা বলেন এই গরুটি তারা নদীর কাছে পেয়েছেন।

দৌলতদিয়া ট্রলার ঘাটের ইজারাদার খবির মন্ডল বলেন, খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে গাফফার মেম্বারের নেতৃত্বে গরুটি জবাই করে মাংস ভাগাভাগি করে নিতে দেখি। পরে তারা নিজেরাই গরুটি নদীর পাড় হতে খুঁজে পাওয়ার বিষয়টি স্বীকার করেন।
গরু ব্যবসায়ী আইয়ুব আলী বলেন, আমার মূল্যবান গরুটি ছুটে হারিয়ে যায়নি। গরুটি আমাদের অগোচরে চুরি করা হয়েছে। আমি গরু চুরির অভিযোগেই গত ১৩ মে মামলা করেছি গোয়ালন্দ ঘাট থানায়। যদি ছুটেও গিয়ে থাকে একজন জনপ্রতিনিধি হিসেবে আ. গফুর ওরফে গাফফারের উচিত ছিল গরুর মালিকের খোঁজ করা। কিন্তু তিনি তা না করে গোপনে তার লোকজন নিয়ে গরুটি জবাই করে মাংস ভাগ-বাটোয়ারা করে নেন।
গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি আব্দুল্লাহ আল তায়াবীর বলেন, এ বিষয়ে গরুর প্রকৃত মালিক বাদী হয়ে আ. গফুর ওরফে গাফফার মেম্বারকে প্রধান করে মোট সাতজনের বিরুদ্ধে থানায় একটি মামলা করেন। মামলায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে প্রধান আসামি গাফ্ফার মেম্বারকে তার নিজ এলাকা থেকে আটক করা হয়। বুধবার তাকে রাজবাড়ীর আদালতে পাঠানো হয়েছে। মামলার অপর আসামিরা পলাতক রয়েছে।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019
Bengali English