শুক্রবার, ২৫ Jun ২০২১, ০৪:১৬ অপরাহ্ন

Notice :
চাকরির পেছনে না ছুটে উদ্যোক্তা হওয়ার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর
সর্বশেষ সংবাদ :
পটুয়াখালীতে প্রকাশ্যে ছাত্রলীগ নেতার দুই হাতের রগ কর্তন, দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার। পদ্মা সেতুতে গ্যাসের পাইপলাইন বসানোর কাজ চলছে। রাজধানীতে ২০ কোটি টাকার জাল স্ট্যাম্প-কোর্ট ফিসহ গ্রেফতার ৪। ডোপ টেস্টে পজিটিভ হলে সরকারি চাকরি হবে না” স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। জিনের আছরে’ নারকেল গাছে নারী, নামাল ফায়ার সার্ভিস। শাটডাউন হবে ‘কারফিউয়ের’ মতো। বরিশালের বাকেরগঞ্জে প্রতারক বন্ধন রফিক গ্রেফতার। ডাচ-বাংলা এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের কোটি টাকা নিয়ে উধাও ছাত্রলীগ নেতা। সিলেটের গোলাপগঞ্জ বাঘা ইউনিয়ন জাপার ৫১ সদস্য আহ্বায়ক কমিটি গঠন। এমন সম্মান শুধু আল্লাহই দিতে পারেন: নতুন সেনাপ্রধান।
স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও সচিবের পদত্যাগ দাবি মির্জা ফখরুলের//

স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও সচিবের পদত্যাগ দাবি মির্জা ফখরুলের//

সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে নির্যাতন ও হয়রানির ঘটনায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও স্বাস্থ্য সচিবের পদত্যাগ দাবি করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। মঙ্গলবার (১৮ মে) সকালে ঠাকুরগাঁও শহরের নিজ বাসভবনে জেলা বিএনপির তৃণমূল নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ দাবি জানান।

মির্জা ফখরুল বলেছেন, প্রথম আলোর সাংবাদিক সত্যটাকে বের করে দায়িত্ব পালন করেছেন। জনগণের সামনে সত্যকে তুলে ধরেছেন। বিশেষ করে করোনার সময় সরকারের যে দুর্নীতি এগুলোকে জনসম্মুখে নিয়ে এসেছেন। এই ‘অপরাধে’ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটেছে। আমরা কল্পনাও করতে পারিনি, রোজিনা ইসলামকে আটক করে নির্যাতনের পর পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়েছে এবং মিথ্যা মামলা দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, আমি এ সরকারকে ধিক্কার জানাই। তীব্র ভাষায় প্রতিবাদ করছি। অবিলম্বে সকল মামলা প্রত্যাহার করে তার মুক্তির দাবি করছি। এইসঙ্গে স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও স্বাস্থ্য সচিবের পদত্যাগ দাবি করছি। আমরা আগেই থেকেই বলছি, এদেশে মানুষের কোনো অধিকার নেই; না আছে সাধারণ মানুষের, না আছে রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ও সাংবাদিকদের অধিকার।

এ সময় সাংবাদিকদের নিজের প্রয়োজনে ঐক্যবদ্ধ হয়ে রাজপথে দাঁড়ানোর পরামর্শ দেন ফখরুল। তবে চাকরি হারানোর ভয়ে অনেকেই তা করতে পারছেন না বলে মন্তব্যও করেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, এই যদি রাষ্ট্র ব্যবস্থা হয়, তাহলে রাষ্ট্রের ওপর থেকে মানুষের আস্থা হারিয়ে যাবে। আজকে মিথ্যা মামলায় দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে দীর্ঘকাল ধরে কারাভোগ করতে হচ্ছে। এখন তিনি এত অসুস্থ যে চিকিকিৎসকরা দেশের বাইরে নিয়ে চিকিৎসার পরামর্শ দিলেও সরকার তাতে বাধা দিচ্ছে।

দেশে ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করা হয়েছে মন্তব্য করে ফখরুল আরও বলেন, দেশে গণতন্ত্রের কর্মীরা কীভাবে টিকে থাকবে, এটা তো ফ্যাসিবাদ। ভয় ও ত্রাসের রাজত্ব সৃস্টি করা হয়েছে। এখনও সময় আছে সবাইকে সচেতন হওয়া উচিত। সমস্ত বিবেকবান ও পেশাজীবী মানুষকে নিজেদের অধিকার রক্ষার্থে ঐক্যবদ্ধ হওয়া দরকার।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019
Bengali English