শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০৮:৪৯ পূর্বাহ্ন

Notice :
প্রকাশ্যে ধূমপান করে তোপের মুখেপড়া এক তরুণীর ভিডিও ভাইরাল।চরমোনাই পীরের ওয়াজ মাহফিল বাতিল।বিএনপির কোনো নেতাকর্মী যেন পদ্মা সেতু পার না হয় বললেন শাজাহান খান।জাতীয় পরিচয়পত্রের তথ্য অনুযায়ী, ভাতাপ্রাপ্ত প্রায় দুই হাজার বীর মুক্তিযোদ্ধার বয়স ৫০–এর নিচে।করোনা আক্রান্ত কনের অভিনব পদ্ধতিতে বিয়ে (ভিডিও)আবাসিক হোটেলে জনপ্রিয় অভিনেত্রীর ঝুলন্ত মরদেহ।পুলিশে হঠাৎ বড় রদবদল।ইউটিউবে যাত্রা শুরু করছেন মিজানুর রহমান আজহারী।
সর্বশেষ সংবাদ :
মসজিদে মাস্ক না পরায় সংঘর্ষে আহত ১০। সকালে সন্তান জন্ম দিয়ে বিকেলে করোনায় সংবাদকর্মীর মৃত্যু। জীবননগরে মানব সেবা সংগঠনের উদ্যোগে জায়নামাজ ও তসবিহ বিতরণ। ১৪-আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন কক্সবাজারে(এপিবিএন)এ নতুন অধিনায়ক এ যোগদান। চট্টগ্রামে স্কুলছাত্রীর অশ্লীল ভিডিও ধারণ, শিক্ষক গ্রেফতার। ছেলে অর্থলোভে পাগল সাজিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করলেন বাবাকে। প্রধানমন্ত্রীর পদ নিয়ে সৃষ্ট অন্তঃকলহ স্বাধীনতার প্রশ্নে ভুলে যান জাতীয় চার নেতা। হেফাজত নেতা মাওলানা জুবায়ের গ্রেফতার। উপজেলা চেয়ারম্যানের কিল-ঘুষিতে এক বৃদ্ধের করুণ মৃত্যু। আবর্জনার গাড়িতে নেওয়া হচ্ছে করোনার মৃতদেহ।
যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা। আজকের ক্রাইম নিউজ

যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা। আজকের ক্রাইম নিউজ

অনলাইন ডেস্ক::: যৌতুকের টাকা না পেয়ে নরসিংদীর মাধবদীতে স্বামী বিপ্লব মিয়ার দেওয়া আগুনে স্ত্রী খাদিজা আক্তার রুমার মৃত্যু হয়েছে।

ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে পাঁচদিন চিকিৎসাধীন থাকার পর শনিবার (২১ নভেম্বর) ভোরে রুমা মারা যান। এ ঘটনার পর দুপুরে স্বামী বিপ্লব মিয়াকে আটক করে পুলিশ।

মৃত খাদিজা আক্তার রুমা নরসিংদী সদর উপজেলার শিলমান্দী গ্রামের কাজল মিয়ার মেয়ে।

পুলিশ জানায়, সোমবার (১৬ ডিসেম্বর) দুপুরে যৌতুকের টাকার জন্য গৃহবধূ খাদিজা আক্তার রুমার শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেন স্বামী বিপ্লব মিয়া। আশপাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে চিকিৎসকরা খাদিজাকে ঢামেক হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় পাঁচদিন মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে শনিবার ভোরে তিনি মারা যান।

মৃত খাদিজার বাবা কাজল মিয়া সাংবাদিকদের জানান, প্রায় দেড় বছর আগে মেয়ে খাদিজাকে বিপ্লবের সঙ্গে বিয়ে দেওয়া হয়। তাদের একটি সাত মাসের মেয়ে রয়েছে। বিয়ের পর থেকে যৌতুকের তিন লাখ টাকার জন্য বিপ্লব প্রায় সময় খাদিজার ওপর নির্যাতন করতেন। এক পর্যায়ে টাকা দিতে না পারায় খাদিজাকে হত্যার উদ্দেশে পূর্বপরিকল্পিতভাবে শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয় বিপ্লব।

মাধবদী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) দিদারুল আলম সাংবাদিকদের জানান, মৃত গৃহবধূর বাবা কাজল মিয়া বাদী হয়ে মাধবদী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেছেন। এ ঘটনায় স্বামী বিপ্লবকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019
Bengali English